চুয়াডাঙ্গা জেলায় প্রাকৃতিক দুর্যোগে অসহায় মানুষের পাশে মানোবিক পুলিশ প্রশাসন।

দেশজুড়ে

ইয়াসিন আরাফাত মিলন:

চুয়াডাঙ্গার ওপর দিয়ে বয়ে যাওয়া প্রবল ঘূর্ণীঝড় আম্ফান । চুয়াডাঙ্গা আবহাওয়া অফিস গত ২১ মে রাত নয়টার পর থেকে প্রচন্ড গতিতে।

সূত্রে জানা গেছে, জেলায় ঝড়ের সর্বোচ্চ গতিবেগ ছিল ঘণ্টায় ৮২ কিলোমিটার এবং বৃষ্টিপাত রেকর্ড করা হয়েছে ১৪৮ মিলিমিটার। ঝড়ের আঘাতে ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে অসংখ্য কাঁচা ঘরবাড়ি। ভেঙেছে গাছ, বিদ্যুতের খুঁটি।

শহরের প্রধান প্রধান সড়ক ও রাস্তায় গাছ ভেঙ্গে পড়ে রাস্তার দুদিকে অসংখ্য মাল ও পন্যবাহি ট্রাক, কভার্ডভ্যান, অ্যাম্বুলেন্স আটকা পড়ে যাওয়া ফলে মানুষ দুর্ভোগের স্বীকার হয়।

চুয়াডাঙ্গা জেলার সুযোগ্য পুলিশ সুপার জনাব মোঃ জাহিদুল ইসলাম এঁর নির্দেশনায় ঝড়ের গতিবেগ কিছুটা কম হলে চুয়াডাঙ্গা জেলা পুলিশ সদস্য ও কমিউনিটি পুলিশের সদস্যদের সমন্বয়ে মানুষের নিরবিচ্ছিন্ন চলাচল করতে ঝড়ের কবলে ভেঙ্গে যাওয়া গাছপালা তাৎক্ষনিক প্রধান প্রধান সড়ক থেকে অপসারণ করা হয়।

হৃদয়/এমবিটি

Tagged

Leave a Reply

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.